০৭:৪২ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ৪ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বালিয়াকান্দিতে স্বাস্থ্য বিষয়ক সেমিনার, মা ও শিশু মৃত্যুর হার শূণ্যের কোঠায় নামাতে হবে

নিজস্ব প্রতিবেদক, বালিয়াকান্দি, রাজবাড়ীঃ সেফ মাদারহুড থ্রো লাইভলিহুড ইমপ্রুভমেন্ট ফ্যাসিলিটির (সেফ লাইফ) প্রকল্প পরিচালক বেলায়েত হোসেন মিয়া বলেছেন, ২০২৫ সালের মধ্যে প্রকল্প এলাকায় মা ও শিশু মৃত্যুর হার শূণ্যের কোঠায় নামিয়ে আনাসহ কমপক্ষে ৯০ শতাংশ গরীব, অনগ্রসর ও সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীর জীবন মানের সার্বিক উন্নয়ন করা হবে।

বাংলাদেশ সরকারের রূপকল্প (ভিশন-২০২১) জাতিসংঘ কর্তৃক গৃহীত টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে বাংলাদেশ সরকারের কর্মকান্ডকে সহায়তা করার লক্ষ্যে সেফ লাইফ কাজ করে যাচ্ছে। সোমবার দিনব্যাপী রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দির সদর ইউনিয়ন পরিষদ হলরুমে সেফ মাদারহুড থ্রো লাইভলিহুড ইমপ্রুভমেন্ট ফ্যাসিলিটি (সেফ লাইফ) প্রকল্পের আয়োজনে ও সমাজ সেবা অধিদপ্তরের এবং হেলথ এন্ড এডুকেশন ফর দি লোকাল আন্ডার প্রিভিলাইজ্ড পিপল (হেলথ) এর সহযোগিতায় অনুষ্ঠিত সেমিনারে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, প্রকল্পটি বাস্তাবায়িত হলে প্রকল্প এলাকার প্রসূতি মা ও শিশু মৃত্যু হার হ্রাস পাবে। মা ও শিশু স্বাস্থ্যের পুষ্টিগত মান উন্নত হবে। গর্ভবতী মা ও নবজাতক শিশুর সেবার মান উন্নত ও সুনিশ্চিত হবে। এছাড়া আয় বৃদ্ধিমূলক কর্মকান্ডে প্রশিক্ষণ প্রদানের ফলে পারিবারিক আয় বৃদ্ধি পাবে। সেমিনারে মূল প্রবন্ধ পাঠ করেন বালিয়াকান্দি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল কর্মকর্তা ডা. সজল কুমার সোম।

উপজেলা কোয়াডিনেটর মোঃ হারুন অর রশিদ হারুনের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন, যুব উন্নয়ন কমর্কতা আবু বক্কার সিদ্দিক, মহিলা বিষয়ক কমর্কতা আফরোজা জেসমিন, সমবায় কমর্কতা নজরুল ইসলাম প্রমুখ। এসময় উপস্থিত ছিলেন, রিজিওনাল ম্যানেজার শামিম আহমেদ। সেমিনারে সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা, ঈমাম, বিশিষ্টজন, সুধীসমাজ, ব্যবসায়ী, স্বাস্থ্যকর্মী, সাংবাদিক অংশগ্রহণ করেন।

ট্যাগঃ
রিপোর্টারের সম্পর্কে জানুন

Rajbari Mail

গোয়ালন্দে ছাত্রলীগের বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত, কমিটি ঘোষণা হবে প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে

বালিয়াকান্দিতে স্বাস্থ্য বিষয়ক সেমিনার, মা ও শিশু মৃত্যুর হার শূণ্যের কোঠায় নামাতে হবে

পোস্ট হয়েছেঃ ১০:৪২:৩২ অপরাহ্ন, সোমবার, ৩ জুন ২০২৪

নিজস্ব প্রতিবেদক, বালিয়াকান্দি, রাজবাড়ীঃ সেফ মাদারহুড থ্রো লাইভলিহুড ইমপ্রুভমেন্ট ফ্যাসিলিটির (সেফ লাইফ) প্রকল্প পরিচালক বেলায়েত হোসেন মিয়া বলেছেন, ২০২৫ সালের মধ্যে প্রকল্প এলাকায় মা ও শিশু মৃত্যুর হার শূণ্যের কোঠায় নামিয়ে আনাসহ কমপক্ষে ৯০ শতাংশ গরীব, অনগ্রসর ও সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীর জীবন মানের সার্বিক উন্নয়ন করা হবে।

বাংলাদেশ সরকারের রূপকল্প (ভিশন-২০২১) জাতিসংঘ কর্তৃক গৃহীত টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে বাংলাদেশ সরকারের কর্মকান্ডকে সহায়তা করার লক্ষ্যে সেফ লাইফ কাজ করে যাচ্ছে। সোমবার দিনব্যাপী রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দির সদর ইউনিয়ন পরিষদ হলরুমে সেফ মাদারহুড থ্রো লাইভলিহুড ইমপ্রুভমেন্ট ফ্যাসিলিটি (সেফ লাইফ) প্রকল্পের আয়োজনে ও সমাজ সেবা অধিদপ্তরের এবং হেলথ এন্ড এডুকেশন ফর দি লোকাল আন্ডার প্রিভিলাইজ্ড পিপল (হেলথ) এর সহযোগিতায় অনুষ্ঠিত সেমিনারে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, প্রকল্পটি বাস্তাবায়িত হলে প্রকল্প এলাকার প্রসূতি মা ও শিশু মৃত্যু হার হ্রাস পাবে। মা ও শিশু স্বাস্থ্যের পুষ্টিগত মান উন্নত হবে। গর্ভবতী মা ও নবজাতক শিশুর সেবার মান উন্নত ও সুনিশ্চিত হবে। এছাড়া আয় বৃদ্ধিমূলক কর্মকান্ডে প্রশিক্ষণ প্রদানের ফলে পারিবারিক আয় বৃদ্ধি পাবে। সেমিনারে মূল প্রবন্ধ পাঠ করেন বালিয়াকান্দি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল কর্মকর্তা ডা. সজল কুমার সোম।

উপজেলা কোয়াডিনেটর মোঃ হারুন অর রশিদ হারুনের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন, যুব উন্নয়ন কমর্কতা আবু বক্কার সিদ্দিক, মহিলা বিষয়ক কমর্কতা আফরোজা জেসমিন, সমবায় কমর্কতা নজরুল ইসলাম প্রমুখ। এসময় উপস্থিত ছিলেন, রিজিওনাল ম্যানেজার শামিম আহমেদ। সেমিনারে সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা, ঈমাম, বিশিষ্টজন, সুধীসমাজ, ব্যবসায়ী, স্বাস্থ্যকর্মী, সাংবাদিক অংশগ্রহণ করেন।