০৯:০৮ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ২৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠান শেষে ফেরার পথে আ.লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, গুরুতর আহত ৫

নিজস্ব প্রতিবেদক, পাংশা, রাজবাড়ীঃ রাজবাড়ীর পাংশায় আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠান শেষে ফেরার পথে স্থানীয় আ.লীগের দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ ও রেফ্রিজারেটরের দোকান ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। এতে দুই গ্রুপের ৫ জন গুরুতর আহত হয়েছে। রোববার রাত ৮টার দিকে উপজেলার মাছপাড়া বাজার ও সুলতান মোড় এলাকায় হামলা হয়।

স্থানীয় সূত্র জানায়, মাছপাড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি সুরুজ মৃধা মাছপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের উপনির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে লড়বেন বলে ঘোষণা দিয়েছেন। অন্যদিকে পাংশা উপজেলা আ.লীগের সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান খন্দকার সাইফুল ইসলাম বুড়োর ছেলে উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক খন্দকার তাজবীর হাসান সিসিলও ইউপি চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে লড়বেন। এ কারনে উভয়ের মধ্যে রাজনৈতিক মতবিরোধ চলছে।

রোববার (২৩ জুন) বিকেলে পাংশা কলেজ মাঠে আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী অনুষ্ঠানের আয়োজন করে উপজেলা আ.লীগ। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন রাজবাড়ী-২ আসনের সংসদ সদস্য, রেলপথ মন্ত্রী মো. জিল্লুল হাকিম এমপি। মাছপাড়া থেকে আ.লীগ নেতা সুরুজ মৃধার মোটরসাইকেলের বহর অনুষ্ঠানে আসছিল। খন্দকার তাজবীর হাসান সিসিলেরও ভ্যান ও মোটরসাইকেলের বহর অনুষ্ঠানে যোগ দেয়।

সুরুজ মৃধার অভিযোগ, অনুষ্ঠান শেষে ফেরার পথে মাছপাড়া বাজারে উপজেলা চেয়ারম্যান ও তার ছেলের নেতৃত্বে আমার মোটরসাইকেলের বহরে পিছনে অতর্কিত হামলা চালায়। মোটরসাইকেল চালক তপু মন্ডল (৩২), আরোহী আরজেন সরদার (৩০) ও মিরাজ মন্ডল (৩২) গুরুতর আহত হন। আরেক কর্মী হিরক এর ফ্রিজ-টেলিভিশনের দোকান ভাঙচুর করে কয়েক লাখ টাকার ক্ষতি করে। পাশের বড়রিয়া গ্রামে তার কর্মীদের বাড়িতে হামলা চালায়।

সুরুজ মৃধার নিকট আত্মীয় শেখ কামাল হোসেন নিজেকে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন শ্রমিক কর্মচারী লীগের সেক্রেটারী পরিচয় দিয়ে বলেন, অনুষ্ঠান শেষে ফেরার পর রাত ১০টার দিকে উপজেলা চেয়ারম্যানের লোকজন আমার বাড়িতে হানা দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছলে ফিরে যায়। রাত ১১টার দিকে সুজন নামের এক কর্মীর বাড়ি ভাঙচুর করে।

পাংশা উপজেলা আ.লীগের সভাপতি ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান খন্দকার সাইফুল ইসলাম বুড়ো বলেন, আমার ছেলে খন্দকার তাজবীর হাসান সিসিল মাছপাড়া ইউপি উপনির্বাচনে যাতে অংশ নিতে না পারে এজন্য তারা নানা ধরনের পরিকল্পনা করছে। আমার লোকজন অনুষ্ঠানে যাতে যোগ দিতে না পারে মাছপাড়া বাজারে ভ্যান ও মোটরসাইকেল বহর সামনে থেকে আটকে দেয়। ফেরার পথে মাছাপাড়া বাজারে সুরুজ মৃধার লোকজন আকষ্মিকভাবে আমার লোকজনের ওপর চড়াও হয়ে গরমপানি ছুড়ে মারধর শুরু করলে প্রতিহত করে। এতে জিহাদ শেখ (২৮) ও আলামিন শিকদার (২৪) নামের আমার দুইকর্মী গুরুতর আহত হন। তাদের পাংশা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সাধারণ আহত হয়েছেন আরো কয়েকজন। থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছি।

পাংশা মডেল থানার উপপরির্দশক (এসআই) তারিকুল ইসলাম বলেন, এ ঘটনায় সুরুজ মৃধার ভাই শামসুল মৃধা লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। এছাড়া মাছপাড়া এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ টহলে রয়েছে। পরিস্থিতি এখন অনেকটা স্বাভাবিক আছে। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কোন আটক বা গ্রেপ্তার নেই।

ট্যাগঃ
রিপোর্টারের সম্পর্কে জানুন

Rajbari Mail

জনপ্রিয় পোস্ট

বালিয়াকান্দি উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি সোহেল ও সম্পাদক কামরুল পুনরায় নির্বাচিত

প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠান শেষে ফেরার পথে আ.লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, গুরুতর আহত ৫

পোস্ট হয়েছেঃ ০৭:০৭:৪৮ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪

নিজস্ব প্রতিবেদক, পাংশা, রাজবাড়ীঃ রাজবাড়ীর পাংশায় আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠান শেষে ফেরার পথে স্থানীয় আ.লীগের দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ ও রেফ্রিজারেটরের দোকান ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। এতে দুই গ্রুপের ৫ জন গুরুতর আহত হয়েছে। রোববার রাত ৮টার দিকে উপজেলার মাছপাড়া বাজার ও সুলতান মোড় এলাকায় হামলা হয়।

স্থানীয় সূত্র জানায়, মাছপাড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি সুরুজ মৃধা মাছপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের উপনির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে লড়বেন বলে ঘোষণা দিয়েছেন। অন্যদিকে পাংশা উপজেলা আ.লীগের সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান খন্দকার সাইফুল ইসলাম বুড়োর ছেলে উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক খন্দকার তাজবীর হাসান সিসিলও ইউপি চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে লড়বেন। এ কারনে উভয়ের মধ্যে রাজনৈতিক মতবিরোধ চলছে।

রোববার (২৩ জুন) বিকেলে পাংশা কলেজ মাঠে আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী অনুষ্ঠানের আয়োজন করে উপজেলা আ.লীগ। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন রাজবাড়ী-২ আসনের সংসদ সদস্য, রেলপথ মন্ত্রী মো. জিল্লুল হাকিম এমপি। মাছপাড়া থেকে আ.লীগ নেতা সুরুজ মৃধার মোটরসাইকেলের বহর অনুষ্ঠানে আসছিল। খন্দকার তাজবীর হাসান সিসিলেরও ভ্যান ও মোটরসাইকেলের বহর অনুষ্ঠানে যোগ দেয়।

সুরুজ মৃধার অভিযোগ, অনুষ্ঠান শেষে ফেরার পথে মাছপাড়া বাজারে উপজেলা চেয়ারম্যান ও তার ছেলের নেতৃত্বে আমার মোটরসাইকেলের বহরে পিছনে অতর্কিত হামলা চালায়। মোটরসাইকেল চালক তপু মন্ডল (৩২), আরোহী আরজেন সরদার (৩০) ও মিরাজ মন্ডল (৩২) গুরুতর আহত হন। আরেক কর্মী হিরক এর ফ্রিজ-টেলিভিশনের দোকান ভাঙচুর করে কয়েক লাখ টাকার ক্ষতি করে। পাশের বড়রিয়া গ্রামে তার কর্মীদের বাড়িতে হামলা চালায়।

সুরুজ মৃধার নিকট আত্মীয় শেখ কামাল হোসেন নিজেকে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন শ্রমিক কর্মচারী লীগের সেক্রেটারী পরিচয় দিয়ে বলেন, অনুষ্ঠান শেষে ফেরার পর রাত ১০টার দিকে উপজেলা চেয়ারম্যানের লোকজন আমার বাড়িতে হানা দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছলে ফিরে যায়। রাত ১১টার দিকে সুজন নামের এক কর্মীর বাড়ি ভাঙচুর করে।

পাংশা উপজেলা আ.লীগের সভাপতি ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান খন্দকার সাইফুল ইসলাম বুড়ো বলেন, আমার ছেলে খন্দকার তাজবীর হাসান সিসিল মাছপাড়া ইউপি উপনির্বাচনে যাতে অংশ নিতে না পারে এজন্য তারা নানা ধরনের পরিকল্পনা করছে। আমার লোকজন অনুষ্ঠানে যাতে যোগ দিতে না পারে মাছপাড়া বাজারে ভ্যান ও মোটরসাইকেল বহর সামনে থেকে আটকে দেয়। ফেরার পথে মাছাপাড়া বাজারে সুরুজ মৃধার লোকজন আকষ্মিকভাবে আমার লোকজনের ওপর চড়াও হয়ে গরমপানি ছুড়ে মারধর শুরু করলে প্রতিহত করে। এতে জিহাদ শেখ (২৮) ও আলামিন শিকদার (২৪) নামের আমার দুইকর্মী গুরুতর আহত হন। তাদের পাংশা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সাধারণ আহত হয়েছেন আরো কয়েকজন। থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছি।

পাংশা মডেল থানার উপপরির্দশক (এসআই) তারিকুল ইসলাম বলেন, এ ঘটনায় সুরুজ মৃধার ভাই শামসুল মৃধা লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। এছাড়া মাছপাড়া এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ টহলে রয়েছে। পরিস্থিতি এখন অনেকটা স্বাভাবিক আছে। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কোন আটক বা গ্রেপ্তার নেই।