১০:০৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ২৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

গোয়ালন্দে উপজেলা চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যানদের সংবর্ধনা

নিজস্ব প্রতিবেদক, গোয়ালন্দ, রাজবাড়ীঃ রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার নবনির্বাচিত উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যানগন শপথ গ্রহণ শেষে আজ বুধবার বিকেলে নিজ এলাকায় ফিরে আসলে তাঁদেরকে সংবর্ধনা প্রদান করা হয়। দৌলতদিয়া ফেরি ঘাটে দলীয় নেতাকর্মীদের পাশাপাশি স্থানীয় কয়েক হাজার মানুষ তাঁদের ফুলেল শুভেচ্ছা জানান। পরে নেতৃবৃন্দ গোয়ালন্দ উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে স্থাপিত বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

মঙ্গলবার (২৫জুন) ঢাকা বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়ে শপথ গ্রহণ শেষে গোয়ালন্দ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মো. মোস্তফা মুন্সী, পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান চৌধুরী এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আফরোজা রাব্বানী বুধবার নিজ এলাকায় ফিরেন। বিকেল সাড়ে পাঁচটার দিকে তাঁরা কে টাইপ ফেরিতে দৌলতদিয়ার ৪নম্বর ফেরি ঘাটে নামেন। এসময় দৌলতদিয়া ফেরি ঘাটেই দলীয় নেতাকর্মীসহ শুভাকাঙ্খিরা শ্লোগানে মুখরিত করে রাখে। ফেরি থেকে তাঁদেরকে ফুলের পাপরি ছিটিয়ে এবং ফুলের মালা পড়িয়ে বরণ করে নেওয়া হয়। দলীয় নেতাকর্মীদের সাথে করে নেতৃবৃন্দ গোয়ালন্দ উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ের সামনে স্থাপিত বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুলেল শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

এসময় গোয়ালন্দ পৌরসভার মেয়র ও পৌর আ.লীগের সভাপতি মো. নজরুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বিপ্লব ঘোষ, পৌর আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম সুজ্জল, দেবগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাফিজুল ইসলাম, উজানচর ইউপি চেয়ারম্যান গোলজার হোসেন মৃধা, ছোটভাকলা ইউপি চেয়ারম্যান আমজাদ হোসেন, দৌলতদিয়া ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রহমান মন্ডলসহ আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, মহিলা যুবলীগসহ দলীয় নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। পরে তাঁদের দলীয় কার্যালয়ে দলের বিভিন্ন ইউনিটের পক্ষ থেকে ফুলের তোড়া দিয়ে শুভেচ্ছা জানানো হয়।

এ সময় উপজেলা পরিষদের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান ও গোয়ালন্দ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. মোস্তফা মুন্সী সকলের কাছে আগামী দিনগুলোতে সকলের সহযোগিতা নিয়ে যাতে আরো ভালো কিছু করা যায় এবং গোয়ালন্দকে নতুনভাবে সাজানো যায় সেই প্রত্যাশা ব্যাক্ত করেন।

ট্যাগঃ
রিপোর্টারের সম্পর্কে জানুন

Rajbari Mail

জনপ্রিয় পোস্ট

বালিয়াকান্দি উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি সোহেল ও সম্পাদক কামরুল পুনরায় নির্বাচিত

গোয়ালন্দে উপজেলা চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যানদের সংবর্ধনা

পোস্ট হয়েছেঃ ০৭:১৮:১৬ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৭ জুন ২০২৪

নিজস্ব প্রতিবেদক, গোয়ালন্দ, রাজবাড়ীঃ রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার নবনির্বাচিত উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যানগন শপথ গ্রহণ শেষে আজ বুধবার বিকেলে নিজ এলাকায় ফিরে আসলে তাঁদেরকে সংবর্ধনা প্রদান করা হয়। দৌলতদিয়া ফেরি ঘাটে দলীয় নেতাকর্মীদের পাশাপাশি স্থানীয় কয়েক হাজার মানুষ তাঁদের ফুলেল শুভেচ্ছা জানান। পরে নেতৃবৃন্দ গোয়ালন্দ উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে স্থাপিত বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

মঙ্গলবার (২৫জুন) ঢাকা বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়ে শপথ গ্রহণ শেষে গোয়ালন্দ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মো. মোস্তফা মুন্সী, পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান চৌধুরী এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আফরোজা রাব্বানী বুধবার নিজ এলাকায় ফিরেন। বিকেল সাড়ে পাঁচটার দিকে তাঁরা কে টাইপ ফেরিতে দৌলতদিয়ার ৪নম্বর ফেরি ঘাটে নামেন। এসময় দৌলতদিয়া ফেরি ঘাটেই দলীয় নেতাকর্মীসহ শুভাকাঙ্খিরা শ্লোগানে মুখরিত করে রাখে। ফেরি থেকে তাঁদেরকে ফুলের পাপরি ছিটিয়ে এবং ফুলের মালা পড়িয়ে বরণ করে নেওয়া হয়। দলীয় নেতাকর্মীদের সাথে করে নেতৃবৃন্দ গোয়ালন্দ উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ের সামনে স্থাপিত বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুলেল শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

এসময় গোয়ালন্দ পৌরসভার মেয়র ও পৌর আ.লীগের সভাপতি মো. নজরুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বিপ্লব ঘোষ, পৌর আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম সুজ্জল, দেবগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাফিজুল ইসলাম, উজানচর ইউপি চেয়ারম্যান গোলজার হোসেন মৃধা, ছোটভাকলা ইউপি চেয়ারম্যান আমজাদ হোসেন, দৌলতদিয়া ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রহমান মন্ডলসহ আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, মহিলা যুবলীগসহ দলীয় নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। পরে তাঁদের দলীয় কার্যালয়ে দলের বিভিন্ন ইউনিটের পক্ষ থেকে ফুলের তোড়া দিয়ে শুভেচ্ছা জানানো হয়।

এ সময় উপজেলা পরিষদের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান ও গোয়ালন্দ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. মোস্তফা মুন্সী সকলের কাছে আগামী দিনগুলোতে সকলের সহযোগিতা নিয়ে যাতে আরো ভালো কিছু করা যায় এবং গোয়ালন্দকে নতুনভাবে সাজানো যায় সেই প্রত্যাশা ব্যাক্ত করেন।