August 6, 2022, 1:14 am
শিরোনামঃ
গোয়ালন্দে নানা অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে শেখ কামালের ৭৩তম জন্মদিন পালন টাকা ছিনিয়ে নিতেই খুন করা হয় মানসিক ভারসাম্যহীন ভিক্ষুককে, অপর ভিক্ষুককে কুপিয়ে জখম গোয়ালন্দে চলন্ত ফেরি থেকে চার জুয়াড়ি গ্রেপ্তার, টাকা ও তাস জব্দ ক্যান্সারে আক্রান্ত আলিফের পাশে প্রথম আলো গোয়ালন্দ বন্ধুসভা গোয়ালন্দে পদ্মার ২৫ কেজির বিপন্ন বাগাড় বিক্রি হলো ২৮ হাজার টাকায় গোয়ালন্দে ডিবি পুলিশের অভিযানে ইয়াবাসহ গ্রেপ্তার ১ রাজবাড়ীতে ৬০ কোটি টাকা হাতিয়ে নেওয়া এমএলএম কোম্পানির প্রধান গ্রেপ্তারের পর কার্যালয়ে তল্লাশি রাজবাড়ী জেলা ট্রাক কাভার্ডভ্যান ড্রাইভার্স ইউনিয়নের ত্রি-বার্ষিক সাধারন সভা অনুষ্ঠিত রাজবাড়ীতে নির্বাচনী প্রতিশ্রতি বাস্তবায়নের দাবীতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল ব্রেইন স্ট্রোকে রোগীর পাশে “আমরা রাজবাড়ীর সন্তান”

গোয়ালন্দে শেষ হলো হরিজন পল্লির চার দিনব্যাপী ছট পূজা

Reporter Name
  • Update Time : শনিবার, নভেম্বর ২১, ২০২০
  • 101 Time View
শেয়ার করুনঃ

জীবন চক্রবর্তী, গোয়ালন্দঃ রাজবাড়ীর গোয়ালন্দে হরিজন পল্লীর আয়োজনে চার দিনব্যাপী ছট পূজার পরিসমাপ্তি ঘটেছে শনিবার সকালে। প্রতি বছরের ন্যায় এবারও হরিজন পল্লীর সনাতন ধর্মাবলম্বীগণ ঢাকা-খুলনা মহাসড়ক সংলগ্ন গোয়ালন্দের পদ্মার মোড়ে নদীর ঘাটে ছট পূজার আয়োজন করেন।

চার দিনের ব্রত সাধনায় প্রথম দিনে শুদ্ধাচারে নিরামিষ ভোজন করেন। পরদিন থেকে উপবাস শুরু হয়। ব্রতি কিরন রানী ভক্ত দিনভর নির্জলা উপবাস পালন করে সন্ধ্যায় পূজা শেষে ক্ষীরের গ্রহণ করেন। তৃতীয় দিনে পুনরায় পদ্মা নদীর ঘাটে অন্যান্য ব্রতীর সাথে অস্তগামী সূর্যকে অর্ঘ অর্থাৎ দুধ অর্পণ করা হয়। ব্রতের শেষ দিন অর্থাৎ শনিবার সকালে পুনরায় পদ্মার ঘাটে ধুপ ধুনা জ্বালিয়ে বাদ্যযন্ত্র সহকারে উদীয়মান সূর্যকে পবিত্র চিত্তে অর্ঘ্য প্রদানের পর উপবাস ভঙ্গ করে। পূজার প্রসাদ সরুপ বাঁশ নির্মিত পাত্রে সুপ, গুড়, মিষ্টান্ন, ক্ষীর,ঠেকুয়া, ভাতের নারু, আআখ,বিভিন্ন প্রকার ফল দেয়া হয়।

পুজা উদযাপন কমিটির সভাপতি রতন ভক্ত বলন,”আমাদের পূর্বপুরুষ থেকে এই ছট পুজা করে আসছি, মূলত এটাকে সূর্যপূজা বলা হয়। প্রতি বছর কার্তিক মাসে শুক্ল পক্ষে পূজার আয়োজন করা হয়। পারিবারিক সুখ-সমৃদ্ধি তথা মনোবাঞ্ছনা পূরনের জন্য এ পুজা করা হয়। নারী-পুরুষ সমান ভাবে এই পূজা উৎসবে অংশগ্রহণ করে।

পুজা কমিটির সাধারণ সম্পাদক শ্যামভক্ত বলেন, এ পুজায় আমরা ডুবিত এবং উদিত সূৃযকে পুজা করি।পুজার একদিন আগে লাউ ভাত এবং একদিন আগে ক্ষীর ভাত খাওয়ার সঙ্গে ৩৬ ঘণ্টার এক কঠোর ব্রত পালন করা হয়। পুজাতে ঠেকুয়া প্রস্তুত করে নৈবেদ্য দেওয়া হয়। সূর্য পুজায় কোমড় জলে নেমে সূর্যদেবকে তর্পণ করন। আমাদের বৈদিক নিয়মে আমরা এ পুজাটা খুব নিষ্ঠার সাথে প্রতি বছর পালন করে থাকি।

Please Share This Post in Your Social Media

0 0 votes
Article Rating
Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments
More News Of This Category
© All rights reserved © 2021 Rajbarimail
DeveloperAsif
themesba-lates1749691102
0
Would love your thoughts, please comment.x
()
x