December 4, 2022, 4:03 am

গোয়ালন্দে কৃষক নিজামের দুই বিঘা জমির ধান কেটে দিল কৃষকলীগ নেতাকর্মীরা

Reporter Name
  • Update Time : সোমবার, মে ৪, ২০২০
  • 123 Time View
শেয়ার করুনঃ

বিশেষ প্রতিনিধিঃ রাজবাড়ীর গোয়ালন্দে কৃষক নিজাম উদ্দিন শেখ এর প্রায় দুই বিঘা জমির পাকা ধান কেটে দিল কৃষকলীগের নেতাকর্মীরা। সোমবার খুব সকাল থেকে শুরু করে দুপুরের আগ পর্যন্ত ওই কৃষকের সম্পূর্ণ ধান কেটে দেয় দলীয় নেতা-কর্মীরা। ধান কাটায় নেতৃত্ব দেন বৃহত্তর ফরিদপুর অঞ্চলের দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রধান সমন্বয়কারী, কৃষকলীগ নেতা নুরে আলম সিদ্দিকী হক।

উপজেলার উজানচর ইউনিয়নের হারেজ মিয়ার পাড়ার কৃষক নিজাম উদ্দিন শেখ এর রোপনকৃত দুই বিঘা জমির ধান পেকে যাওয়ায় কাটতে শ্রমিক সংকটে ভূগছিলেন। স্থানীয়ভাবে শ্রমিক পাওয়া যায়নি বলে গোয়ালন্দ বাজারের সাপ্তাহিক হাটের দিন কুষ্টিয়া, যশোর ও মেহেরপুর থেকে আসা শ্রমিকের ওপর নির্ভর করে এ অঞ্চলের কৃষকরা ধান কাটা, মাড়াই করাসহ অন্যান্য কাজ করতো। করোনার কারণে যোগাযোগ ব্যবস্থা বন্ধ থাকায় বাইরে থেকে কোন শ্রমিক আসতে পারছে না। এ কারণে বিপাকে পড়েন কৃষক নিজাম শেখ। বিভিন্ন মাধ্যমে কৃষকলীগের কর্মীরা কৃষকের ধান কেটে দিচ্ছে এমন খবরের ভিত্তিতে তিনি স্থানীয় কৃষকলীগ নেতৃবৃন্দের সাথে যোগাযোগ করেন। পরে কেন্দ্রীয় কৃষক লীগ নেতা নুরে আলম সিদ্দিকীর সাথে যোগাযোগ করলে তিনি এ উদ্যোগ নেন।

সোমবার বেলা এগারটায় হারেজ মিয়ার পাড়ায় দেখা যায়, কৃষক নিজাম শেখের জমিতে লোকজন ধান কাটায় ব্যস্তÍ। তাঁদের সাথে যোগ দিয়েছেন কেন্দ্রীয় কৃষকলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক নুরে আলম সিদ্দিকী হক। তাঁর সাথে রয়েছেন রাজবাড়ী জেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক আবু বক্কর খান, গোয়ালন্দ উপজেলা কৃষকলীগের আহ্বায়ক আব্দুল মোমিন শেখ, যুগ্ম-আহ্বায়ক দেলোয়ার হোসেন, সদস্য সচিব হাবিবুর রহমান, পৌর কৃষকলীগের আহ্বায়ক সিদ্দিক মোল্লা, সদস্য সচিব লিটন আলী, উজানচর ইউনিয়ন শাখার সভাপতি আবুল প্রামানিক, সাধারণ সম্পাদক শাহিন খান, ছোটভাকলা ইউনিয়নের সভাপতি মাজেদ শেখ, সাধারণ সম্পাদক কালাম সরদারসহ প্রায় ১০০ কর্মী।

 

কৃষক নিজাম উদ্দিন শেখ বলেন, এক সাথে প্রায় সব ধান পেকে যাওয়ায় কাটতে শ্রমিক পাচ্ছিলাম না। আগে গোয়ালন্দ বাজার রেলওয়ে ষ্টেশনে যশোর, কুষ্টিয়া সহ বিভিন্ন অঞ্চল থেকে আসা শ্রমিকরদের নিয়ে আসতাম। বর্তমানে করোনার কারণে পরিবহন বন্ধ থাকায় তারা আসছে না। এখন এই পাকা ধান কাটা নিয়ে দুশ্চিন্তায় ছিলাম। স্থানীয় কিছু তরুণের মাধ্যমে জানতে পারি বিভিন্ন স্থানে কৃষকলীগের লোকজন ধান কেটে দিচ্ছে। এখানকার নেতাদের সাথে কথা বললে তারা আজ প্রায় ১০০ জনের মতো নেতাকর্মী এসে আমার দুই বিঘা পাকা ধান কেটে দিয়েছে। এমনকি আরো ধান কাটতে কেন্দ্রীয় কৃষকলীগ নেতা নুরে আলম সিদ্দিকী হক খরচ বাবদ নগদ টাকাও দিয়েছেন। আমার অনেক উপকার হয়েছে। খুব খুশি হয়েছি তাদের এ কর্মকান্ডে।

বৃহত্তর ফরিদপুর অঞ্চলের দায়িত্বপ্রাপ্ত কৃষকলীগের প্রধান সন্বয়কারী নুরে আলম সিদ্দিকী হক রাজবাড়ীমেইলকে বলেন, আমরা এখানে ফটোসেশন করতে আসিনি। কৃষি বান্ধব সরকার প্রধান শেখ হাসিনার নির্দেশে সারাদেশে কৃষকলীগের নেতাকর্মীরা শ্রমিকের অভাবে যারা ধান কাটতে পারছে না, খেতেই নষ্ট হওয়ার উপক্রম হচ্ছে এমন অসহায় কৃষকের পাকা ধান কাটার নির্দেশনা দিয়েছেন। তারই ধারাবাহিকতায় শতাধিক নেতাকর্মী এই কৃষকের সম্পূর্ণ ধান কেটে দিয়েছেন। এরকম অসহায় কোন কৃষক থাকলে তার ধানও কেটে দিবে নেতৃবৃন্দ।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category
© All rights reserved © 2021 Rajbarimail
DeveloperAsif
themesba-lates1749691102