September 18, 2021, 8:25 am

গোয়ালন্দে করোনা প্রতিরোধে রাস্তায় রাস্তায় বেরিকেড দিলেন যুব সমাজ

Reporter Name
  • Update Time : শুক্রবার, এপ্রিল ১০, ২০২০
  • 57 Time View
শেয়ার করুনঃ

ষ্টাফ রিপোর্টারঃ করোনাভাইরাস প্রতিরোধে অবাধ যাতায়াত বন্ধ করতে রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার কয়েকটি স্থানে স্থানীয় যুব শ্রেণী রাস্তা আটকে দিয়েছে। বাঁশ, কাঠের গুড়ি দিয়ে রাস্তা আটকে কাগজে লক ডাউন লিখে ঝুলিয়ে দিয়েছে। এসময় অতি জরুরী কারো দরকার হলে ওই রাস্তা দিয়ে প্রবেশকালে যুবকরা জীবাণুনাশত স্প্রে করে দিচ্ছে।

স্থানীয় লোকজনের সাথে কথা বলে জানা গেছে, দেশে করোনাভাইরাসের সংক্রমণের হার দিন দিন বেড়ে যাওয়ায় সবার মাঝে এক ধরনের আতঙ্ক দেখা দিয়েছে। এছাড়া নারায়ণগঞ্জসহ অনেক স্থান থেকে লোকজন পালিয়ে নিজ এলাকায় ফিরে আসায় স্থানীয়দের মাঝে আতঙ্ক আরো বেড়েছে। এ কারণে স্থানীয় লোকজন গোয়ালন্দ পৌরসভার রেলগেট হাউলি কেউটিল, কৃষ্ণতলা ও উজানচর ইউনিয়নের কদমতলী এলাকায় স্থানীয় কিছু যুবক বৃহস্পতিবার বিকেল থেকে রাস্তায় বেরিকেড দিয়ে আটকে দিয়েছে। এসময় রাস্তায় দুই পাশে বাঁশ দিয়ে আটকে দিয়ে তাতে কাগজে লক ডাউন লিখে তাতে ঝুলিয়ে দিয়েছে।

ছোটভাকলা ইউনিয়নের কদমতলি রাস্তার প্রবেশ পথ মৌলভীর বাজারে স্থানীয় যুব সমাজের ব্যানারে বৃহস্পতিবার থেকে রাস্তা আটকে দিয়েছে। সংগঠনের প্রায় ৩২ জন সদস্য পালাক্রমে ওই এলাকায় অবস্থান করছে। তারা জীবাণুনাশক ওষুধ স্প্রে করছে। জরুরী কোন পরিবহন ও মানুষের চলাচলের ক্ষেত্রে তারা যাচাই বাছাই করে জীবাণুনাশক ওষুধ স্প্রে করে তবে ছাড়ছে। একই সাথে কেউ এলাকায় প্রবেশ করলে মৌলভীর বাজার থেকে সাবান দিয়ে ভালোভাবে হাত ধুইয়ে যেতে হচ্ছে।

কদমতলী যুব সমাজের পক্ষে এনামুল কবির বলেন, বর্তমানে করোনাভাইরাস ভয়াবহ আকার ধারণ করছে। এখনই যদি আমরা সচেতন না হই তাহলে আগামীতে আরো বড় ধরনের বিপদ হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। তাই আমরা এলাকার যুব সমাজ মিলে লক ডাউনের সিদ্ধান্ত নিয়ে বৃহস্পতিবার থেকে কাজ শুরু করেছি। এই রাস্তা দিয়ে প্রতিদিন মানুষ রাজবাড়ীতেও যাতায়াত করে থাকে।


রেলগেট হাউলি কেউটিল এলাকার যুবক ফিরোজ আহম্মেদ বলেন, প্রতিদিন রাস্তা দিয়ে অসংখ্য মানুষ উপজেলার ছোটভাকলা ইউনিয়নের এমনকি রাজবাড়ীও যাতায়াত করে থাকে। এছাড়া এলাকার লোকজন ওই রাস্তা দিয়ে নিয়মিত চলাফেরা করে থাকে। যার ফলে আমাদের কাছে মনে হয়েছে এলাকাবাসীর জন্য চরম ঝুকিপর্ণূ। নিজেদের নিরাপদ রাখতে এলাকার কিছু যুবক রাস্তাটি বন্ধ করে দেওয়া উচিত। জরুরী পণ্যবাহি গাড়ি বা মানুষ চলাচলের সময় জীবাণুনাশক স্প্রে করে তবে প্রবেশ করতে দিচ্ছি।

কৃষ্ণতলার এলাকায় রাস্তা আটকে দেওয়ায় স্থানীয় অনেকে ঠিকমতো চলাচল করতে পারছে না বলে কেউ কেউ অভিযোগের সুরে বলেন। স্থানীয় কাঠ মিস্ত্রি উজ্জল শেখ বলেন, প্রতিদিন কাজ করতে না পারলে আমরা চলবো কিভাবে? বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় কাজ শেষ করে বাড়িতে যায়। পরদিন শুক্রবার সকালে কাজে বের হতে শুনি রাস্তা বন্ধ রয়েছে। আইনশৃঙ্খলাবাহিনীর সদস্যদের সহযোগিতায় স্থানীয় লোকজন রাস্তায় বাঁশ দিয়ে আটকে দিয়েছে। এতে করে অনেকে ভয়ে বাড়ি থেকে বের হচ্ছে না।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রুবায়েত হায়াত শিপলু বলেন, কিছু লোক পালিয়ে এলাকায় আসার খবর পেয়েছি। এসব পরিবার চিহিৃত করে স্থানীয় জনপ্রতিনিধিসহ পুলিশের মাধ্যেমে তাদের বাড়ির বাইরে যেতে বারণ করা হচ্ছে। করোনাভাইরাসে আক্রান্তের খবর পাওয়া গেলে ওইএলাকা লকডাউন করা হবে। এছাড়া কিছু এলাকায় স্থানীয়রা রাস্তা আটকে দিয়েছে বলেও জেনেছি।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category
© All rights reserved © 2021 Rajbarimail
Developed by POS Digital
themesba-lates1749691102