১১:৪৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৩ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

গোয়ালন্দে বয়স্ক ব্যক্তির মৃত্যুঃ করোনা আতঙ্কে জানাযায় গাফলতি

ষ্টাফ রিপোর্টারঃ রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার দেবগ্রাম ইউনিয়নের কাওয়ালজানি গ্রামে এক বয়স্ক ব্যক্তি বুধবার নিজ বাড়িতে মারা যান। দীর্ঘদিন ধরে তিনি শ্বাসকষ্টে ভূগছিলেন বলে করোনাভাইরাস আতঙ্কে পরিবারের পাশাপাশি এলাকাবাসী সহজে লাশের কাছে ভিড়ছিলনা। এমনকি তার জানাযার ক্ষেত্রেও গাফলতি করছিল। পরে স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে করোনা হয়নি নিশ্চিত হওয়ার পর এবং স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানের হস্তক্ষেপে দাফন সম্পন্ন হয়।

দেবগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. হাফিজুল ইসলাম বলেন, ইউনিয়নের কাওয়ালজানি গ্রামের মৃত সুখি শেখ এর ছেলে আব্দুল কাদের শেখ (৬২) গতকাল বুধবার সকাল ৮টার দিকে নিজ বাড়িতে মৃত্যু বরণ করেন। শ্বাসকষ্টে ভূগছিলেন বলে করোনাভাইরাস আতঙ্কে প্রথমে পরিবারের লোকজন লাশের কাছে ভিড়তে শঙ্কাবোধ করেন। এমনকি তার লাশ দেখতে প্রতিবেশী ও এলাকার লোকজনও সহজে ভিড়ছিলনা। বিষয়টি সমাধানে স্থানীয় লোকজন তাঁকে (ইউপি চেয়ারম্যান) জানান। পরে তিনি উপজেলা প্রশাসনসহ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সকে অবগত করেন। পরে করোনাভাইরাসে সংক্রমিত না হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত হলে প্রায় পাঁচ ঘন্টা পর জানাযা শেষে দাফন সম্পন্ন করা হয়।

স্থানীয় ৪ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক দুলাল কবিরাজ বলেন, আব্দুল কাদের শেখ দীর্ঘদিন ধরে শ্বাসকষ্টে ভূগছিলেন। মঙ্গলবার সে বেশি অসুস্থ্য হয়ে পড়লে তাকে হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখান থেকে রাতেই ফিরে আসলে পরদিন বুধবার সকালে সে মারা যায়। পরিবারের লোকজন মনে ভয় নিয়ে ভিড়লেও এলাকাবাসী কাছে সহজে ভিড়ছিলনা। পরে স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে তার করোনা হয়নি নিশ্চিত হলে দুপুর দুইটার দিকে দেবগ্রাম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে জানাযার করা হয়।

গোয়ালন্দ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) নিতাই কুমার ঘোষ জানান, এ ধরনের সংবাদ পাওয়ার পর আমাদের একটি টিম সেখানে পাঠানো হয়। পরবর্তীতে মৃত আব্দুল কাদের শেখকে কোনো করোনাভাইরাস সংক্রমিত করেনি এবং এ ধরনের কোন আলামত পাওয়া যায়নি। বিষয়টি তাদের পরিবারকে পরিস্কারভাবে ধারণা দেওয়া হলে সবার মধ্যে ভীতি দূর হয়। পরবর্তীতে সকলে মিলে তার জানাযার ব্যবস্থা করে।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আসিফ মাহমুদ রাজবাড়ীমেইলকে জানান, এ ধরনের সংবাদ শুনেছিলেন। তিনি বয়স্ক ও হৃদযন্ত্র ক্রিয়া বন্ধ হয়ে মারা গেছেন। অন্য কোন সমস্যায়ও ওই ব্যক্তি মারা যাননি। এখন পর্যন্ত গোয়ালন্দ উপজেলায় করোনাভাইরাস সংক্রমিত হওয়ার কোন সন্ধান পাওয়া যায়নি বলে তিনি জানান।

ট্যাগঃ
রিপোর্টারের সম্পর্কে জানুন

Rajbari Mail

জনপ্রিয় পোস্ট

গোয়ালন্দ উপজেলা চেয়ারম্যান কাপ ক্রিকেট টুর্নামেন্টের ফাইনাল

গোয়ালন্দে বয়স্ক ব্যক্তির মৃত্যুঃ করোনা আতঙ্কে জানাযায় গাফলতি

পোস্ট হয়েছেঃ ০৫:৪৪:১৭ অপরাহ্ন, বুধবার, ৮ এপ্রিল ২০২০

ষ্টাফ রিপোর্টারঃ রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার দেবগ্রাম ইউনিয়নের কাওয়ালজানি গ্রামে এক বয়স্ক ব্যক্তি বুধবার নিজ বাড়িতে মারা যান। দীর্ঘদিন ধরে তিনি শ্বাসকষ্টে ভূগছিলেন বলে করোনাভাইরাস আতঙ্কে পরিবারের পাশাপাশি এলাকাবাসী সহজে লাশের কাছে ভিড়ছিলনা। এমনকি তার জানাযার ক্ষেত্রেও গাফলতি করছিল। পরে স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে করোনা হয়নি নিশ্চিত হওয়ার পর এবং স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানের হস্তক্ষেপে দাফন সম্পন্ন হয়।

দেবগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. হাফিজুল ইসলাম বলেন, ইউনিয়নের কাওয়ালজানি গ্রামের মৃত সুখি শেখ এর ছেলে আব্দুল কাদের শেখ (৬২) গতকাল বুধবার সকাল ৮টার দিকে নিজ বাড়িতে মৃত্যু বরণ করেন। শ্বাসকষ্টে ভূগছিলেন বলে করোনাভাইরাস আতঙ্কে প্রথমে পরিবারের লোকজন লাশের কাছে ভিড়তে শঙ্কাবোধ করেন। এমনকি তার লাশ দেখতে প্রতিবেশী ও এলাকার লোকজনও সহজে ভিড়ছিলনা। বিষয়টি সমাধানে স্থানীয় লোকজন তাঁকে (ইউপি চেয়ারম্যান) জানান। পরে তিনি উপজেলা প্রশাসনসহ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সকে অবগত করেন। পরে করোনাভাইরাসে সংক্রমিত না হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত হলে প্রায় পাঁচ ঘন্টা পর জানাযা শেষে দাফন সম্পন্ন করা হয়।

স্থানীয় ৪ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক দুলাল কবিরাজ বলেন, আব্দুল কাদের শেখ দীর্ঘদিন ধরে শ্বাসকষ্টে ভূগছিলেন। মঙ্গলবার সে বেশি অসুস্থ্য হয়ে পড়লে তাকে হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখান থেকে রাতেই ফিরে আসলে পরদিন বুধবার সকালে সে মারা যায়। পরিবারের লোকজন মনে ভয় নিয়ে ভিড়লেও এলাকাবাসী কাছে সহজে ভিড়ছিলনা। পরে স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে তার করোনা হয়নি নিশ্চিত হলে দুপুর দুইটার দিকে দেবগ্রাম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে জানাযার করা হয়।

গোয়ালন্দ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) নিতাই কুমার ঘোষ জানান, এ ধরনের সংবাদ পাওয়ার পর আমাদের একটি টিম সেখানে পাঠানো হয়। পরবর্তীতে মৃত আব্দুল কাদের শেখকে কোনো করোনাভাইরাস সংক্রমিত করেনি এবং এ ধরনের কোন আলামত পাওয়া যায়নি। বিষয়টি তাদের পরিবারকে পরিস্কারভাবে ধারণা দেওয়া হলে সবার মধ্যে ভীতি দূর হয়। পরবর্তীতে সকলে মিলে তার জানাযার ব্যবস্থা করে।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আসিফ মাহমুদ রাজবাড়ীমেইলকে জানান, এ ধরনের সংবাদ শুনেছিলেন। তিনি বয়স্ক ও হৃদযন্ত্র ক্রিয়া বন্ধ হয়ে মারা গেছেন। অন্য কোন সমস্যায়ও ওই ব্যক্তি মারা যাননি। এখন পর্যন্ত গোয়ালন্দ উপজেলায় করোনাভাইরাস সংক্রমিত হওয়ার কোন সন্ধান পাওয়া যায়নি বলে তিনি জানান।