September 25, 2021, 3:20 pm
Title :
রাজবাড়ীতে পদ্মার গর্ভে বিলীন চরনিসিলিমপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভবন সংবাদ সম্মেলন জেলা আ.লীগের সভাপতি প্রার্থীতা ঘোষনা দিলেন সাংসদ কাজী কেরামত রাজবাড়ীতে বাইসাইকেল পেলো ৯৮ গ্রাম পুলিশ গোয়ালন্দে মাদক সেবনকারী ৫ ব্যাক্তিকে ৩ মাস করে কারাদণ্ড প্রদান পাংশায় মাছ ধরতে গিয়ে নিখোঁজের দুই দিন পর যুবকের লাশ উদ্ধার রাজবাড়ীতে বিদুৎ স্পর্শে ইলেকট্রিক মিস্ত্রির মৃত্যু রাজবাড়ীতে আ.লীগের বর্ধিত সভাঃ ‘দলকে শক্তিশালী করতে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান’ গোয়ালন্দে ভ্রাম্যমাণ আদালত কতৃক মুরগীর খামারীকে জরিমানা প্রয়াত নুরু মন্ডলের মৃত্যু বার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া মাহ্ফিল ও স্বরণ সভা রাজবাড়ীতে স্বপ্নচূড়া’র আয়োজনে শাহ আব্দুল করিমে’র মৃত্যু বার্ষিকী পালিত

দুই সিটি নির্বাচন সুষ্ঠু হওয়া নিয়ে সংশয় প্রকাশ করেছেন মওদুদ

Reporter Name
  • Update Time : শুক্রবার, জানুয়ারি ৩, ২০২০
  • 19 Time View
শেয়ার করুনঃ

ঢাকার দুই সিটি নির্বাচন সুষ্ঠু হওয়া নিয়ে সংশয় প্রকাশ করেছেন বিএনপির জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ। তিনি বলেছেন, নির্বাচনে খুব হইচই হবে, মিছিল হবে, নির্বাচনের দুদিন আগে দেখবেন সব ঠাণ্ডা। একদিকে গ্রেফতার, অন্যদিকে ভোট চলছে।

শুক্রবার রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে জাতীয়তাবাদী তাঁতী দল আয়োজিত ‘স্বাধীনতা ও ভোটাধিকার হরণ এবং আজকের বাস্তবতা’ শীর্ষক আলোচনাসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

সরকার লোক দেখানো নির্বাচন করছে উল্লেখ করে মওদুদ বলেন, আমরা ঢাকা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে অংশগ্রহণ করব। জনগণ যদি ভোট দিতে পারে তা হলে বিপুল ভোটে আমরাই নির্বাচিত হব। কিন্তু সরকার এই নির্বাচন করছে লোক দেখানোর জন্য।

তিনি বলেন, ২০১৯ সাল আমাদের মাঝে অভিশাপ হয়ে থাকবে। এ বছর সরকার সব ক্ষেত্রে ব্যর্থ হয়েছে। সরকারের বড় দুর্বলতা হলো– জনগণের ভোটে নির্বাচিত হয়নি, ভোটের অধিকার থেকে জনগণকে বঞ্চিত করেছে। সরকারের এই নির্বাচন লোক দেখানো নির্বাচন।

খালেদা জিয়ার মুক্তি প্রসঙ্গে মওদুদ আহমদ বলেন, খালেদা জিয়ার মুক্তি আর গণতন্ত্রের মুক্তি একই কথা। আন্দোলন ছাড়া খালেদা জিয়ার মুক্তি ও গণতন্ত্র রক্ষা করা সম্ভব না।

আন্দোলন ছাড়া খালেদা জিয়ার মুক্তি মিলবে না উল্লেখ করে তিনি বলেন, আন্দোলনের বিকল্প নেই, আমরা আন্দোলনের মাধ্যমেই খালেদা জিয়া এবং গণতন্ত্র মুক্ত করব। আমরা যদি আন্দোলন করতে পারি তা হলে সফল হব, না হলে জনগণের কাছে ক্ষমা চাইতে হবে। এবার আমরা আন্দোলনের কর্মসূচি দিয়ে মাঠে থাকব, সফল না হওয়া পর্যন্ত ফিরে যাব না।

সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মাহমুদুর রহমান মান্না বলেন, পরিস্থিতি অনেক বদলে গেছে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় যেখানে কেউ কথা বলতে পারত না, সেখানে আজ সরকারের বিরুদ্ধে মিছিল হচ্ছে। এটিও কিন্তু বিজয়েরই একটি অংশ। আমি সরকারকে বলব– তুমি ব্যর্থ, তুমি কোনো কিছুর নিরাপত্তা দিতে পার না, তোমার ক্ষমতায় থাকার কোনো অধিকার নেই।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আব্দুস সালাম, মুক্তিযোদ্ধা হুমায়ুন ইসলাম খান, অ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম আজাদসহ দলের অন্য নেতাকর্মীরা।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category
© All rights reserved © 2021 Rajbarimail
Developed by POS Digital
themesba-lates1749691102