September 30, 2022, 5:19 am
শিরোনামঃ
দৌলতদিয়া ফেরিঘাট এলাকায় ভাঙন, বসতভিটা বিলীন, তিন ফেরিঘাট বন্ধ গোয়ালন্দে পুলিশের হাতে ইয়াবাবড়ি ও ফেনসিডিলসহ গ্রেপ্তার ৫ অস্ত্র-গুলি ও সহযোগীসহ পাংশার পৌরসভার কাউন্সিলর গ্রেপ্তার গোয়ালন্দে আন্তর্জাতিক তথ্য অধিকার দিবস পালিত গোয়ালন্দে মা ও শিশু ওয়ার্ড এবং পোষ্ট অপারেটিভ ওয়ার্ড উদ্বোধন মুক্তিযোদ্ধাদের মাঝে ডিজিটাল সার্টিফিকেট ও স্মার্ট আইডি কার্ড হস্তান্তর গোয়ালন্দে মাদক বিরোধী প্রীতি ফুটবল খেলা অনুষ্ঠিত গোয়ালন্দে সামাজিক-সম্প্রীতি সমাবেশ অনুষ্ঠিত রাজবাড়ী জেলা পরিষদ নির্বাচনে প্রার্থীদের মাঝে প্রতিক বরাদ্দ সম্পন্ন দৌলতদিয়ায় পদ্মার ১৩ কেজির বোয়াল বিক্রি হলো ২৮ হাজারে

মৃত্যুর আগ পর্যন্ত সাধারণ মানুষের পাশে থাকতে চান নায়িকা রোজিনা

Reporter Name
  • Update Time : সোমবার, মে ২, ২০২২
  • 158 Time View
শেয়ার করুনঃ

বিশেষ প্রতিনিধি, গোয়ালন্দঃ “আমি মৃত্যুর আগ পর্যন্ত সাধারণ মানুষের পাশে থাকতে চাই। যতদিন বেঁচে থাকবো ততদিন এসব হত দরিদ্র ও সাধারণ মানুষের সেবায় নিজেকে নিয়োজিত রাখবো। এছাড়া আর দুনিয়াতে বাচবই বা কতদিন। এ কারনে নিজের গ্রামের বাড়ির আঙ্গিনায় একটি ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান মসজিদও প্রতিষ্ঠা করেছি।” কথাগুলো বলছিলেন দেশের প্রথিত যশা অভিনয় শিল্পি, সনামধন্য চলচিত্র জগতের চিত্র নায়িকা রোজিনা।

গ্রামের বাড়ি রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার জুড়ান মোল্লার পাড়ায় আজ রোববার বিকেলে দরিদ্র দুই শতাধিক পরিবারের মাঝে শাড়ি-কাপড় ও লুঙ্গি বিতরণ করেন। জাকাতের অর্থ দিয়ে তিনি প্রতি বছরের ন্যায় এবারও এসব কাপড় বিতরণ করেন। এর পাশাপাশি তিনি তাঁর গ্রামের বাড়ি রাজবাড়ী শহরের ভবানিপুর এবং ঢাকায়ও বিতরণ করেছেন।

গোয়ালন্দ পৌরসভার ৫নম্বর ওয়ার্ড জুড়ান মোল্লা পাড়ার রোজিনার নিজের বাড়ির উঠানে দুই শতাধিক নারী ও পুরুষের মাঝে ঈদের একদিন আগে শাড়ি-কাপড় ও লুঙ্গি বিতরণ করেন। এসময় গোয়ালন্দ প্রেসক্লাব সভাপতি রাশেদ রায়হান, স্থানীয় ৫ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেন, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব মাইনদ্দিন মানু, মা খাদিজা জামে মসজিদ পরিচালনা কমিটির সাধারণ সম্পাদক সহ পরিবারের সদস্যরা ও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

ঈদের একদিন আগে হাতে নতুন কাপড় পেয়ে খুশি গ্রামের মরিয়ম বেগম। বৃদ্ধা মরিয়ম বেগম বলেন, এই ঈদ আইলো, কেউ অহন পর্যন্ত খোঁজ-খবর নিলনা। অথচ নায়িকা রোজিনা আপা গ্রামে আইসাই আমাগো খোঁজ নিল। নতুন কাপড় পাইয়া মনডা ভইরা গেল। আল্লাহ তাঁর মনের আশা পুরুন করুন। তিনি যেন বেশি বেশি করে মানুষের পাশে দাড়াতে পারেন।

বাচ্চু শেখ বলেন, নিজে কাম-কাইজ তেমন করতে পারিনা। মাইনসের কাছে চাইয়া-চিন্তা চলতে হয়। সেদিন এলাকার একজন বাড়ি এসে একটা লুঙ্গি দিইয়া গেছে। আইজ রোজিনা আপা আমারে ডাইকা একটা লুঙ্গি দিছে। অহন আর চিন্তা নাই। অন্তত এই বছরডা চইলা যাবেনে।

স্থানীয় বাসিন্দা মাঈনদ্দিন মানু বলেন, দেশের জনপ্রিয় নায়িকা রোজিনা ম্যাডাম প্রতি বছর ঈদের আগে গ্রামের বাড়ি এসে তিনি দরিদ্র মানুষের মাঝে শাড়ি-কাপড় বিতরণ করেন। সারা বছর এলাকার দরিদ্র মানুষকে তিনি বিভিন্ন ভাবে দান, সাদকা দিয়ে থাকেন। আমরা তাঁর সাথে সারাটি জীবন কাটিয়েছি। যখন তিনি গ্রামে ফিরে আসেন তখন গ্রামের সাধারণ মানুষ আনন্দ প্রকাশ করেন। এলাকার মুসুল্লিদের কথা চিন্তা করে তিনি বাড়ির আঙ্গিনায় একটি সুন্দর “দশ গম্বুজ মা খাদিজা জামে মসজিদ” নির্মাণ করেছেন। মসজিদটি নির্মাণের পর থেকে এখানে প্রচুর মুসুল্লি হয়।

নায়িকা রোজিনা বলেন, আমার গ্রামের বাড়ি রাজবাড়ী শহরের ভবানীপুর। গোয়ালন্দ হচ্ছে তাঁর নানা বাড়ি। এখানেই তাঁর জন্ম। মায়ের বড় সন্তান হিসেবে তাঁর অধিকাংশ সময় কেটেছে গোয়ালন্দে। এখানেই তিনি বড় হয়েছেন। বাড়ির বড় সন্তান হিসেবে এই জমি নানা তার মায়ের নামে দেন। মায়ের সূত্র ধরে তিনি জমির মালিক হন।

পরে ২০১৮ সালে মসজিদ গড়ে তোলার সিদ্ধান্ত নিয়ে পরের বছর ২০১৯ সালে জমি ওয়াকফ করে দেন। ২০২০ সালের ৩ ফেব্রুয়ারী মসজিদ নির্মাণের কাজের শুরু করেন। তুরষ্কের মডেল দেখে দুটি মিনার সহ ১০টি গম্বুজ দিয়ে তুরস্কের নকশায় প্রায় পৌনে দুই কোটি টাকা ব্যায়ে পুরোনোর আদলে তাঁর মায়ের নামে “দশ গম্বুজ মা খাদিজা জামে মসজিদ” আধুনিক দৃষ্টি নন্দন মসজিদ গড়ে তুলেন।

Please Share This Post in Your Social Media

More News Of This Category
© All rights reserved © 2021 Rajbarimail
DeveloperAsif
themesba-lates1749691102