May 18, 2022, 3:05 pm
শিরোনামঃ
দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌপথঃ তিন ফেরি বিকল, ঘাট এলাকায় পণ্যবাহী গাড়ির চাপ গোয়ালন্দে হেরোইনসহ তরুণ গ্রেপ্তার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল রাজবাড়ীতে শব্দ দূষণ নিয়ন্ত্রনে সচেতনতামূলক সভা রাজবাড়ীর পুলিশ পরিদর্শক অধীর চন্দ্র রায়ের বদলি জনিত বিদায় সংবর্ধনা রাজবাড়ীতে পেঁয়াজের দাম বাড়লেও লোকসানে চাষিরা রাজবাড়ীতে কৃষকদের মাঝে ভর্তুকি মূল্যে কৃষি যন্ত্রপাতি বিতরণ গোয়ালন্দে জমি নিয়ে সংঘর্ষে কৃষক নিহত, মামলা দায়ের, গ্রেপ্তার ২ দৌলতদিয়ায় বেশি দামে তেল বিক্রি করায় ৪টি দোকানে জরিমানা গোয়ালন্দে হেরোইনসহ যুবক গ্রেপ্তার

সাবেক মন্ত্রী খন্দকার মোশাররফের ভাই বাবরকে কারাগারে প্রেরণ

Reporter Name
  • Update Time : মঙ্গলবার, মার্চ ৮, ২০২২
  • 64 Time View
শেয়ার করুনঃ

বিশেষ প্রতিনিধি, ফরিদপুরঃ আলোচিত অর্থ পাচার মামলার অভিযোগপত্রভুক্ত গ্রেপ্তারকৃত আসামি মোহতেশাম হোসেন বাবরকে বিকেলে ফরিদপুর জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। খন্দকার মোহতেশাম হোসেন বাবর সাবেক স্থানীয় সরকার মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার খন্দকার মোশাররফ হোসেন এর ছোট ভাই।

তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আপাতত রিমান্ড চাওয়া হচ্ছেনা। মঙ্গলবার বেলা ৩টায় ফরিদপুর কোতয়ালী থানার কনফারেন্স কক্ষে সংবাদ সম্মেলনে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও অপরাধ) জামাল পাশা এ কথা জানান।

এর আগে গতকাল সোমবার (৭ মার্চ) দিবাগত রাত ৩টার দিকে ফরিদপুরের কোতয়ালী থানা পুলিশের একটি বিশেষ দল মোহতেশাম হোসেন বাবরকে রাজধানীর বসুন্ধরার আবাসিক এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করে। তাঁর বিরুদ্ধে রাজধানীর কাফরুল থানায় ২০২১ সালের অর্থ পাচার মামলা দায়ের করে অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)। ওই মামলায় সাবেক বাবর সহ মোট ১০ জনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে সিআইডি। খন্দকার মোহতেশাম হোসেন বাবর ফরিদপুর জেলা আওয়ামী লীগের বর্তমান কমিটির সহসভাপতি ছিলেন।

সংবাদ সম্মেলনে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জামাল পাশা বলেন, ফরিদপুর সদর উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান খন্দকার মোহতেশাম হোসেন বাবর দীর্ঘ সময় ধরে এই ফরিদপুরে যত ধরনের টেন্ডার আছে সমস্ত টেন্ডার থেকে তিনি কমিশন বাণিজ্য করেছেন। এমনকি সকল ধরনের চাকরীর ক্ষেত্রে বাণিজ্য করে দেশ ও বিদেশে অঢেল সম্পত্তি অর্জন করেছেন।

তিনি বলেন, এই ঘটনায় সিআইডি থেকে ডিএমপির কাফরুল থানায় অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি) থেকে একটি অর্থ পাচার আইনে মামলা দায়ের করা হয়। ওই মামলায় দীর্ঘ তদন্ত শেষে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে। খন্দকার মোহতেশাম হোসেন বাবর ওই মামলার অভিযোগপত্রভুক্ত আসামী। এর প্রেক্ষিতে বিজ্ঞ আদালত তাঁর বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারী পরোয়ানা ইস্যু করে। সোমবার দিবাগত রাত ৩টার দিকে কোতয়ালী থানা পুলিশের একটি দল ঢাকার ভাটারা থানার বসুন্ধরা এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করে। তাঁকে আজ বিজ্ঞ আদালতে সোর্পদ করা হচ্ছে। তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। যদি নতুন করে কোন তথ্য পাওয়া যায় তাহলে পরবর্তীতে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তবে আপাতত রিমান্ড চাওয়া হবে না।

পুলিশ জানায়, আদালত অভিযোগপত্রভুক্ত অপর আসামীরা হলেন, সাবেক মন্ত্রী খন্দকার মোশাররফ হোসেন এর এপিএস এএইচএম ফুয়াদ হোসেন, শহর আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদ হোসেন বরকত, ফরিদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি ইমতিয়াজ হাসান রুবেল, শহর আওয়ামী লীগের সভাপতি খন্দকার নাজমুল ইসলাম লেভী, আশিকুর রহমান ফারহান, ফাহান বিন ওয়াজেদ ওরফে ফাহিম, কামরুল হাসান ডেভিড, মোহাম্মদ আলী মিনার ও তারিকুল ইসলাম নাসিম। এদের মধ্যে পুলিশের হাতে আটক রয়েছেন ৬জন। আর জামিনে রয়েছেন ২জন। বাকি ৩জন এখনো পলাতক রয়েছেন।

খন্দকার মোহতেশাম হোসেন বাবরকে মঙ্গলবার সন্ধ্যার আগেই ফরিদপুর জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে বলে নিশ্চিত করেন ফরিদপুর কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এম এ জলিল।

Please Share This Post in Your Social Media

More News Of This Category
© All rights reserved © 2021 Rajbarimail
Developed by POS Digital
themesba-lates1749691102