January 20, 2022, 5:49 pm

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্সপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা দিল গোয়ালন্দ উপজেলা চেয়ারম্যান

Reporter Name
  • Update Time : বৃহস্পতিবার, জানুয়ারি ১৩, ২০২২
  • 46 Time View
শেয়ার করুনঃ

রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলা থেকে এ বছর পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্সপ্রাপ্ত ২০ শিক্ষার্থীকে সংবর্ধনা দিয়েছে গোয়ালন্দ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. মোস্তফা মুন্সী। বুধবার সন্ধ্যায় গোয়ালন্দের উৎপাদনমূখী শিল্প প্রতিষ্ঠান মোস্তফা মেটাল ইন্ডাষ্ট্রিজ লিমিটেড এর সভা মিলনায়তনে সংবর্ধনা প্রদান করা হয়।

গোয়ালন্দ শিশু সংসদের জহিরুল ইসলামের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, উপজেলা দূর্ণীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি ও মোস্তফা মেটাল ইন্ডাষ্ট্রিজ লিমিটেড এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. মোস্তফা মুন্সী ছাড়াও অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন গোয়ালন্দ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আজিজুল হক খান, সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. রফিকুল ইসলাম, সরকারি গোয়ালন্দ কামরুল ইসলাম কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ আব্দুল হালিম তালুকদার, রাবেয়া ইদ্রিস মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ আব্দুল কাদের শেখ, বীর মুক্তিযোদ্ধা ফকীর আব্দুল জব্বার গার্লস কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ সালাহ উদ্দিন মাহমুদ রেজা, গোয়ালন্দ ঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) স্বপন কুমার মজুমদার, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. মাসুদুর রহমান, মোস্তফা মেটাল ইন্ডাষ্ট্রিজ লিমিটেড এর পরিচালক মো. সেলিম মুন্সী প্রমূখ।

এসময় কৃতি ২০ শিক্ষার্থীকে ফুল দিয়ে বরণ করে নেওয়ার পাশাপাশি মোস্তফা গ্রুপের পক্ষ থেকে উপহার সামগ্রী তুলে দেওয়া হয়। এর কয়েকদিন আগে মো. মোস্তফা মুন্সী কয়েকজন পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষায় চান্স পেয়েও অর্থের অভাবে ভর্তি নিয়ে শঙ্কা দূর করে। তাদের ভর্তির যাবতীয় খরচ বহনের দায়িত্ব নেন উপজেলা চেয়ারম্যান। শুধু তাই নয় উপজেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পরিচালনার ক্ষেত্রে আর্থিক সহযোগিতা নিয়মিত প্রদান করে থাকেন।

নিজেদের সংগ্রামের মাধ্যমে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স পাওয়ার অনুভূতি প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে গণিত বিষয়ে চান্স পাওয়া শিক্ষার্থী মো. সাইফুল ইসলাম ও তাসলিমা আক্তার অমি। সাইফুল ইসলাম ফরিদপুর সরকারি ইয়াছিন কলেজ থেকে গত বছর এইচএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়। তাসলিমা আক্তার অমি সরকারি গোয়ালন্দ কামরুল ইসলাম কলেজ থেকে গত বছর এইচএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়। তাসলিমা আক্তার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভাষাবিজ্ঞান বিভাগে ভর্তি পরীক্ষায় চান্স পায়। এরা দুইজন সহ গোয়ালন্দ থেকে এ বছর মোট চারজন শিক্ষার্থী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স পেয়েছে।

অনুষ্ঠানের আয়োজক মো. মোস্তফা মুন্সী বলেন, আমি ছেলে হিসেবে কেমন ছিলাম বলতে পারবোনা। তবে অভিভাবক হিসেবে গর্ববোধ করি। গোয়ালন্দের সন্তানরা কষ্ট করে সংগ্রাম করে পড়াশুনা করে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স পেয়ে ভর্তি হতে পারবেনা এটা হতে পারেনা। তাদের পড়াশুনা যাতে ব্যাহত না হয় এজন্য আমি একজন অভিভাবক হিসেবে দায়িত্ব পালন করতে চাই। শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে বলেন, শুধু পড়াশুনা করলেই হবে না। সুশিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে জাতির হাল ধরতে হবে। বাবা-মাকে নিয়মিত খোঁজ খবর নেওয়াসহ তাদের প্রতি বাড়তি খেয়াল রাখতে হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

More News Of This Category
© All rights reserved © 2021 Rajbarimail
Developed by POS Digital
themesba-lates1749691102